হোম শিক্ষাঙ্গন ঢাবিতে গণরুম সমস্যা: ভিসির বাসায় উঠবেন শিক্ষার্থীরা

ঢাবিতে গণরুম সমস্যা: ভিসির বাসায় উঠবেন শিক্ষার্থীরা

19
0
ঢাবিতে গণরুম সমস্যা : ভিসির বাসায় উঠবেন শিক্ষার্থীরা

বিটিএন২৪ রিপোর্ট: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলে শিক্ষার্থীদের গণরুম সমস্যার সমাধান না হওয়ায় আগামী ২৯ অক্টোবর থেকে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের বাসভবনে শিক্ষার্থীদের নিয়ে ওঠার ঘোষণা দিয়েছেন ডাকসু সদস্য তানভীর হাসান সৈকত।

বৃহস্পতিবার (২৪ অক্টোবর) বিকেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন তিনি। সংবাদ সম্মেলনে তার সঙ্গে সাধারণ শিক্ষার্থীরা অংশ নেন।

তানভীর হাসান সৈকত বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সদস্য এবং ডাকসু নির্বাচনে ছাত্রলীগের প্যানেল থেকে নির্বাচন করে সদস্য নির্বাচিত হন।

ডাকসুর এ নেতা বলেন, উপাচার্য মহোদয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ অভিভাবক হয়েও শিক্ষার্থীদের আবাসন সংকট সমাধান করতে পারছেন না। শিক্ষার্থীরা মানবেতর জীবনযাপন করবে আর তিনি বাংলোয় আয়েশে থাকবেন; এটা কোনোভাবেই অভিভাবকসুলভ কাজ হতে পারে না। উপাচার্য মহোদয়ের বিবেকে না বাধলেও, গণরুম সমস্যা সমাধান না হওয়া পর্যন্ত আমরা আমাদের অভিভাবকের ছায়াতলে আশ্রয় নিতে চাই।

লিখিত বক্তব্যে সৈকত বলেন, গণরুম সমস্যা সমাধানের জন্য গত ১ অক্টোবর সন্ত্রাসবিরোধী রাজু ভাস্কর্যে গণরুমবাসী শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিতে ছাত্রসমাবেশ থেকে ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে গণরুম সমস্যা সমাধানে দৃশ্যমান পদক্ষেপ পরিলক্ষিত না হলে শিক্ষার্থীদের নিয়ে উপাচার্যের বাসভবনে ওঠার একটি আল্টিমেটাম দিয়েছি।

‘এই পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৩ অক্টোবর অনুষ্ঠিত প্রোভোস্ট স্ট্যান্ডিং কমিটির বৈঠকে আশাব্যঞ্জক কিছু সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এ জন্য প্রশাসনকে সাধুবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য সিদ্ধান্তগুলো বাস্তবায়নে কোনো পদক্ষেপ পরিলক্ষিত হচ্ছে না। যা শিক্ষার্থীদের আগের আশার বাণী শুনিয়ে শুনিয়ে কালক্ষেপণের কথাই স্মরণ করিয়ে দেয়। শিক্ষার্থীরা আরও একবার আশাহতের বেদনায় জর্জরিত হওয়ার আশঙ্কা করছে।

উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক সংকট নিরসন ও গণরুম সমস্যা সমাধানের দাবিতে গত ১ সেপ্টেম্বর থেকে নিজের সিট ছেড়ে গণরুমে থাকছেন ডাকসু সদস্য সৈকত। পরে ৩ সেপ্টেম্বর গণরুম সমস্যা সমাধানকল্পে উপাচার্য বরাবর দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণের আহ্বানের পাশাপাশি সাময়িক সমাধানের কয়েকটি প্রস্তাবনা সম্বলিত স্মারকলিপি দেন তিনি। সর্বশেষ গত ১ অক্টোবর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাসবিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে শিক্ষার্থীদের নিয়ে একটি মানববন্ধন করেন।