হোম রাজনীতি ইসলামী হুকুমত কায়েম হলে ধর্ষণের হার শূন্যের কোটায় আনা সম্ভব: মুফতী ফয়জুল্লাহ

ইসলামী হুকুমত কায়েম হলে ধর্ষণের হার শূন্যের কোটায় আনা সম্ভব: মুফতী ফয়জুল্লাহ

ইসলামী হুকুমত কায়েম হলে ধর্ষণের হার শূন্যের কোটায় আনা সম্ভব: মুফতী ফয়জুল্লাহ
ইসলামী ছাত্র খেলাফত আয়োজিত ঢাকা মহানগর দক্ষিণ-এর প্রতিনিধি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাখছেন মুফতী ফয়জুল্লাহ ছবি: বিটিএন২৪

ইসলামী ছাত্র খেলাফত ঢাকা মহানগর দক্ষিণের প্রতিনিধি সম্মেলন অনুষ্ঠিত

বিটিএন২৪ রিপোর্ট: এদেশে ইসলামী হুকুমত কায়েম হলে ধর্ষণের হার শূন্যের কোটায় আনা সম্ভব বলে মন্তব্য করেছেন ইসলামী ঐক্যজোটের মহাসচিব মুফতী ফয়জুল্লাহ।

আজ বুধবার রাজধানীর ফটো জার্নালিস্ট মিলনায়তনে ইসলামী ছাত্র খেলাফত আয়োজিত ঢাকা মহানগর দক্ষিণ-এর প্রতিনিধি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

সম্মেলনে নবীন নেতৃবৃন্দদের উদ্দেশ্যে মুফতী ফয়জুল্লাহ বলেন, আমাদের প্রত্যেকটা কাজের প্রতি বিশ্বাস স্থাপন ও ভিশন ঠিক করতে হবে। ছাত্র খেলাফত কর্মীদের নিজেদের এমনভাবে তৈরী করতে হবে যেন সর্বত্রই তোমাদের পাওয়া যায়।

তিনি আরো বলেন, দেশ ও সমাজের নেতৃত্ব দানের জন্য নিজেদের আদর্শ চরিত্রবান হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। ইসলাম ও মুসলমানের স্বার্থ রক্ষায় সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত থাকতে হবে।

সম্মেলনে আরও বক্তব্য রাখেন ইসলামী ঐক্যজোটের যুগ্ন মহাসচিব মাওলানা ফজলুর রহমান, মাওলানা আলতাফ হুসাইন, সহকারি মহাসচিব মাওলানা ফারুক আহমাদ, ইসলামী ছাত্র খেলাফতের কেন্দ্রীয় সভাপতি মাওলানা খোরশেদ আলম, সহ-সভাপতি মাওলানা ইয়াসিন আরাফাত, সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা আবুল হাসিম শাহী, দপ্তর সম্পাদক মোহাম্মদ ইলিয়াছ আহমদসহ কেন্দ্রীয় ও মহানগর দক্ষিণ-এর নেতৃবৃন্দ।

উক্ত প্রতিনিধি সম্মেলনে মো. এনামুল হাসান ফরহাদকে সভাপতি ও মো. রাতুল হাসান সাধারণ সম্পাদক ও ফখরুদ্দীন রাজীকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট ইসলামী ছাত্র খেলাফত ঢাকা মহানগর দক্ষিণের কমিটি গঠন করা হয়।